যে কারণে সংসার ভাঙলো মাহিয়া মাহির

গণমাধ্যমে গুঞ্জন রটতে রটতে শেষ পর্যন্ত সত্যিই হলো মাহিয়া মাহির বিচ্ছেদের খবর। স্বামী মাহমুদ পারভেজ অপুর সঙ্গে আর থাকছেন না মাহিয়া মাহি। যদিও এ বিষয়ে কখনোই সরাসরি কিছু বলেননি এই অভিনেত্রী। কিন্তু এবার সব গুঞ্জনকে সত্য প্রমাণ করে বিচ্ছেদের ইঙ্গিত দিলেন তিনি নিজেই।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দেন মাহি। স্ট্যাটাসে তিনি লেখেন, ‘এই পৃথিবীর সবচেয়ে ভালো মানুষটার সাথে থাকতে না পারাটা অনেক বড় ব্যর্থতা। পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ শ্বশুর বাড়ির মানুষগুলোকে আর কাছ থেকে না দেখতে পাওয়াটা, বাবার মুখ থেকে মা জননী, বড় বাবার মুখ থেকে সুনামাই শোনার অধিকার হারিয়ে ফেলাটা সবচেয়ে বড় অপারগতা। এ সময় তার এমন সিদ্ধান্তের জন্য ক্ষমা চেয়ে মাহি আরও লেখেন, ‘আমাকে মাফ করে দিও। তোমরা ভালো থেকো। আমি তোমাদের আজীবন মিস করব।

নিজের ফেসবুক পোস্ট নিয়ে গণমাধ্যমে ডিভোর্সের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন মাহি নিজেও। তবে তার অনুরোধ নেতিবাচক কোনো কিছু আলোচনায় না আনতে। তিনি চান সাবেক স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির প্রতি সম্মানবোধটা বেঁচে থাকুক।

সিলেটের মাহমুদ পারভেজ অপুর সঙ্গে ২০১৬ সালের ২৪শে মে বিয়ে হয় মাহিয়া মাহির। অবশেষে পাঁচ বছরের দাম্পত্য জীবনের ইতি টানলেন ঢালিউডের এই জনপ্রিয় নায়িকা।